মহান মে দিবস এবং চিকিৎসা শ্রমিকেরা

লেখকঃ সুব্রত ঘোষ, Field Coordinator at(WHO) and Field Coordinator at DGHS, Bangladesh

আজ মহান মে দিবস, সকল পেশায় নিয়োজিত শ্রমিকগণ এই দিনটি ছুটি হিসেবে পালন করতে পারলেও চিকিৎসা শ্রমিকদের সেই সুযোগটি নেই। কলম শ্রমিক ও ক্যামেরা শ্রমিকদের ছুটি দিতে গিয়ে ২ মে কোন পত্রিকা প্রকাশিত হবে না। কিন্তু চিকিৎসা শ্রমিকদের (ডাক্তার, নার্স এমনকি হাসপাতাল সংশ্লিষ্ট সকল কর্মকর্তা-কর্মচারী) কোন বিরাম নেই। বছরের ৩৬৫ দিনই (ঈদ, পূজা, বড়দিন, বুদ্ধ পূর্ণিমা বা কোন বিশেষ দিনেও আমাদের ছুটি নেই) দিন-রাত ২৪ ঘন্টা অবিরাম সেবা দিয়েও কারও মন যোগাতে পারি না আমরা। নিজের অধ্যবসায়-মেধা-মনন-প্রজ্ঞা-নিষ্ঠা দিয়ে সেবা করে রোগীকে সুস্থ্য করে তুলতে পারলে সেটা দায়িত্বের অংশ বলে বিবেচিত হয় আবার কর্তব্যে অবহেলার ঠুনকো অজুহাতে লাঞ্ছনা-গঞ্জনা মুখ বুজে সহ্য করতে হয়। আমাদের পক্ষে কথা বলার মত কেউই নেই। এই দেশে একটা যাযাবরেরও অধিকার আছে। অধিকার নেই শুধু চিকিৎসকদের।। নিজের অধ্যবসায়-মেধা-মনন-প্রজ্ঞা-নিষ্ঠা দিয়ে সেবা করে রোগীকে সুস্থ্য করে তুলতে পারলে সেটা দায়িত্বের অংশ বলে বিবেচিত হয় আবার কর্তব্যে অবহেলার ঠুনকো অজুহাতে লাঞ্ছনা-গঞ্জনা মুখ বুজে সহ্য করতে হয়। আমাদের পক্ষে কথা বলার মত কেউই নেই। এই দেশে একটা যাযাবরেরও অধিকার আছে। অধিকার নেই শুধু চিকিৎসকদের।

 

ডক্টরস ডেস্ক

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

Next Post

হেলথ ক্যাম্প-১ আনন্দীপুর, ময়মনসিংহ

Sat May 3 , 2014
  লেখকঃ ডাঃ মোহিব নীরব হঠাৎ করেই তার দু’চোখে যেন আলো জ্বলে উঠলো । “সত্যি আপনি সত্যিই যাবেন আমাদের আনন্দীপূরে”? ‘হ্যাঁ শুধু আমি না আমার সাথে “প্ল্যাটফর্ম” থেকে ডাক্তাররা যাবে,স্টুডেন্টরাও যাবে” । “জানেন ভাইয়া প্রথম হেলথ ক্যাম্পের আগে সারা জীবনে এক বারও ডাক্তারের কাছে যায় নি এমন অনেক মানুষ আমাদের […]

সাম্প্রতিক পোষ্ট