পূর্নাঙ্গ কার্যক্রমের দাবীতে মানব বন্ধন করেছেন শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজের শিক্ষার্থীরা

গত তিন অক্টোবর শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পূর্ণাঙ্গ কার্যক্রম চালু করার দাবীতে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়।

মানববন্ধন কর্মসূচি সকাল ১০ টায় শুরু হয় কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতাল থেকে যেখানে বর্তমানে উক্ত মেডিকেলের অস্থায়ী কার্যক্রম পরিচালিত হয়ে আসছে।

এরপর শিক্ষার্থীরা শান্তিপূর্ণ মানববন্ধনের মাধ্যমে দাবী আদায়ের জন্য যায় সিভিল সার্জনের অফিসে।সেখানে সিভিল সার্জনের সাথে কথা বলে এরপর তারা যায় জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে।

সিভিল সার্জন এবং জেলা প্রশাসক মহোদয়কে স্মারকলিপি প্রদানের মাধ্যমে তারা শান্তিপূর্ণ কর্মসূচীর ইতি টানে।
কার্যক্রমটিতে উক্ত মেডিকেলের শতাধিক শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করে এবং সম্মানিত শিক্ষক মন্ডলীও পূর্ণ সমর্থন দিয়েছেন।

বর্তমানে মেডিকেল কলেজে সপ্তম ব্যাচ অধ্যয়নরত। এত গুলো বছর হয়ে যাবার পরেও হাসপাতালটি চালু হচ্ছেনা,শুধুমাত্র কর্তৃপক্ষের উদাসীনতার জন্য।

ইন্টার্নি করতে হচ্ছে ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট সদর হাসপাতালে।
প্রতিদিনের ক্নিনিক্যাল ক্লাস গুলোর জন্য কয়েক কি.মি. দূরে সদরে যেতে হয়।এতে করে প্রচুর সময় নষ্ট হয় শিক্ষার্থীদের।এতে করে ক্লাসের মূল্যবান সময় যাতায়াতেই নষ্ট হচ্ছে।
সদর হাসপাতালে ক্লাস করার ভালো ব্যবস্থাপনা নেই।তাই প্রতিনিয়তই সমস্যার সম্মুখীন হতে হচ্ছে শিক্ষার্থীদের।

অনতি বিলম্বে ৫০০ শয্যা বিশিষ্ট শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল,কিশোরগঞ্জ এর পূর্নাঙ্গ বাস্তবায়নই এখন একমাত্র দাবী শিক্ষার্থীদের।

তথ্য সূত্রঃ সামিয়া রহমান চৌধুরী
ছবিঃ হাসিনা আক্তার মৌসুমী

ওয়েব টিম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

Next Post

নোবেল বিজয়ী আবিষ্কার, ক্যান্সার চিকিৎসায় ইমিউনো থেরাপী কি?

Thu Oct 4 , 2018
সম্প্রতি চিকিৎসা বিজ্ঞানে নোবেল পুরষ্কার পেয়ে গেলেন দু’জন বিজ্ঞানী – জেমস পি অ্যালিসন এবং তাসুকু হোনজো ক্যান্সারের চিকিৎসায় ইমিউনোথেরাপী তে গুরুত্বপূর্ন অবদান রাখার জন্যে। আসুন, খুব সহজে আমরা জেনে নিই – ক্যান্সারের ইমিউনোথেরাপী কী?? কী ছিলো তাদের অবদান?? আমরা জানি আমাদের দেহের প্রতিরক্ষা বাহিনী হলো Immune system এবং সেই প্রতিরক্ষা […]

সাম্প্রতিক পোষ্ট