মেডিকেলিও অভিজ্ঞতা!

রোগ নির্ণয়ে এমন কিছু রক্ত পরীক্ষা আছে যেগুলি সকালে কিছু না খেয়ে নমুনা দিতে হয়। এমন রক্ত পরীক্ষা করাতে চাইলে রোগীকে জিজ্ঞেস করে নিই যে সকালে কিছু খেয়েছেন কি-না? তেমন কয়েকটি ঘটনা:

ঘটনা ১: উচ্চ রক্তচাপের রোগী, ভাবলাম রক্তের চর্বির পরিমানটা(Fasting Lipid Profile) দেখা উচিৎ। জিজ্ঞেস করলাম: -সকালে কিছু খেয়েছেন নাকি খালি পেটে আছেন? -না না কিছু খাইনি, খালি পেটেই বলা যায়। শুধু দুইটা পরটা আর একটা ডিম ভাজি খাইছি। .

ঘটনা ২: দীর্ঘদিনের ডায়াবেটিসের রোগী। বলে দিয়েছিলাম এরপর যেদিন আসবেন, সকালে না খেয়ে আসবেন। খালি পেটে ও খাওয়ার ২ ঘন্টা পর রক্তের গ্লুকোজের মাত্রা দেখতে হবে। মাসখানিক পর উনি আসলেন। যথারীতি জানতে চাইলাম না খেয়ে এসেছন কি-না? রোগী হ্যাঁ সুচক মাথা নাড়লো। ঝামেলা বাধালো রোগীর বউ। প্রায় চিৎকার করেই বললোঃ -আর বইলেন না ডাক্তার সাব, সকালে না খেয়ে আসতে হবে বলে কাল রাতে তিনজনের খাবার একলাই খাইছে। .

ঘটনা ৩: পূর্ব পরিচিত এক বয়ষ্ক ভদ্রলোক চেম্বারে আসলেন, কিছু রুটিন চেক-আপ করাবেন। প্রাথমিক কিছু পরীক্ষা করতে দিব। জানতে চাইলাম: -চাচা সকালে খাওয়া-দাওয়া করে এসেছেন? -হ্যা বাবা খেয়ে এসেছি, তোমাকে কোন আয়োজন করতে হবে না। উনি ভেবেছেন আমি উনাকে নাস্তা করাতে চাচ্ছি। হাসিটা চেপে বলেই ফেল্লাম: -ও… তবে এক কাপ চা খান? -না…… আজ থাক। আমারও বুকের উপর থেকে পাথর সরে গেলো। চেম্বারে আমিই চা খেতে পাইনা, উনাকে খাওয়াবো কিভাবে? রাজি হলে বড্ড বিপদে পড়ে যেতাম।

লেখকঃ M M Zaman Maruf

প্ল্যাটফর্ম ওয়েব

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

Next Post

আমার চেম্বার অভিজ্ঞতা!

Thu Mar 19 , 2015
চেম্বারে বাজে অভিজ্ঞতা নিয়ে মন খারাপ করা কিছু লেখা দেখলাম। স্যারদের নিয়ে আমার অভিজ্ঞতা বেশ ভাল, বলা চলে ১০০% ভাল। ঘটনা-১ঃ আমি তখন প্রথম বর্ষে। মেডিকেলে চান্স পাবার পর প্রথম বাবাকে নিয়ে কোন চেম্বারে গেছি জাদরেল এবং গম্ভীর এক সহযোগী প্রফেসর স্যারের কাছে। পরিচয় পর্ব শেষে বেশ হাসি খুশি ভাবে […]

সাম্প্রতিক পোষ্ট