ব্রাক্ষ্মণবাড়িয়া মেডিকেল কলেজে পালিত হল বিশ্ব জলাতঙ্ক দিবস ২০১৮

২৮ সেপ্টেম্বর, ব্রাক্ষ্মণবাড়িয়া মেডিকেল কলেজে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নির্দেশে এবং বাংলাদেশের চিকিৎসক ও চিকিৎসা শিক্ষার্থীদের সর্ববৃহৎ সংগঠন প্ল্যাটফর্মের সহযোগিতায়, কমিউনিটি মেডিসিন ও মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের তত্বাবধানে, সারাদেশের ৪৫ টি মেডিকেল কলেজের সঙ্গে পালিত হলো “বিশ্ব জলাতঙ্ক দিবস ২০১৮”।

সকাল ১০ টায় কলেজের গ্যালারী তে একটি বৈজ্ঞানীক সেমিনারের মাধ্যমে অনুষ্ঠানটির আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম শুরু হয়। শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত অনুষ্ঠানটি সুন্দর ও সাবলীলভাবে পরিচালনা করেন মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের সম্মানিত সহযোগী অধ্যাপক Dr. Arifur Rahman Masum স্যার।

সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ব্রাক্ষ্মণবাড়িয়া মেডিকেল কলেজের মাননীয় চেয়ারম্যান ডাঃ মোঃ আবু সাঈদ। অধ্যক্ষ মহোদয় অধ্যাপক বিগ্রেঃ জেনাঃ (অব) মোঃ শফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে উক্ত সেমিনারে জলাতঙ্ক বিষয়ে মূল্যবান বক্তৃতা উপস্থাপন করেন অধ্যাপক Dr. Zakiur Rahman বিভাগীয় প্রধান – মাইক্রোবায়োলজি; অধ্যাপক ডাঃ মোঃ আমিনুর রহমান, বিভাগীয় প্রধান- কমিউনিটি মেডিসিন।

কমিউনিটি মেডিসিনের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর ডাঃ আমিনুর রহমান স্যার তার শুভেচ্ছা বক্তব্যের মাধ্যমে অনুষ্ঠানটির উদ্বোধন ঘোষণা করেন। তিনি তার বক্তব্যের মাধ্যমে জলাতঙ্ক রোগ নিয়ে সবার মাঝে ধারণা দেন এবং স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের এই সচেতনতামূলক কার্যক্রমের ভূয়সী প্রশংসা করেন। এধরণের জনসচেতনতামূলক কার্যক্রমের সাথে সংযুক্ত থাকার জন্য তিনি তার সকল ছাত্রছাত্রী এবং উপস্থিত সকলকে আহবান জানান।

সেমিনারে জলাতঙ্ক রোগ নিয়ে বিস্তারিত উপস্থাপন করেন কলেজের মাইক্রোবায়োলজি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ডাঃ জাকিউর রহমান। তিনি তার বক্তব্যে জলাতঙ্ক রোগ সম্পর্কে তথ্যবহুল আলোচনা করেন। জলাতঙ্ক রোগ প্রতিরোধে সকলের করণীয় কি সে বিষয়ে দিক নির্দেশনা দেন তিনি।
সেমিনারে মূল্যবান বক্তব্য রাখেন কলেজের প্রতিষ্ঠাতা ডাঃ মোঃ আবু সাঈদ। তিনি তার বক্তব্যে জলাতঙ্ক রোগ প্রতিকার নিয়ে বিস্তারিত বর্ণনা করেন। সেমিনারে আয়োজকদের প্রতি এবং উপস্থিত সকলের প্রতি ধন্যবাদ জ্ঞাপন জানিয়ে জলাতঙ্ক বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্য রাখেন কলেজের মাননীয় অধ্যক্ষ। এছাড়াও সেমিনারটিতে উপস্থিত ছিলেন, কলেজের সকল বিভাগের বিভাগীয় প্রধান সহ অন্যান্য শিক্ষকমন্ডলী । আরো উপস্থিত ছিলেন অধ্যক্ষ, ইউনাইটেড কেয়ার ইন্সটিটিউট অফ মেডিকেল টেকনোলজি; অধ্যক্ষ, ব্রাক্ষ্মণবাড়িয়া ইউনাইটেড নার্সিং কলেজ।

জলাতঙ্ক বিষয়ে জনসচেতনতামূলক এই কার্যক্রম পরিচালনা করার জন্য ভূয়সী প্রশংসা করেন অধ্যক্ষ, ব্রাক্ষ্মণবাড়িয়া ইউনাইটেড নার্সিং কলেজ।
সেমিনারের পর, সিগনেচার ব্যানারে সিগনেচার করার মাধ্যমে সিগনেচার ক্যাম্পেইন হয়।
এরপর, প্ল্যাটফর্মের কলেজ প্রতিনিধির নেতৃত্বে এক র‍্যালীর আয়োজন করা হয়। সকল শিক্ষার্থী ও সাধারণ মানুষ এতে স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহন করেন। র‍্যালীর পর তারা সাধারণ জনগণের মাঝে লিফলেট বিতরণের মাধ্যমে জলাতঙ্ক রোগ সম্পর্কে জনসচেতনামূলক কার্যক্রম চালনা করেন।
সেমিনার, র‍্যালী ও সিগনেচার ক্যাম্পেইনসহ পুরো অনুষ্ঠানটির নেতৃত্ব দান করে উক্ত কলেজের প্ল্যাটফর্ম প্রতিনিধি Ayesha Mojumder ।
সবশেষে, জলাতঙ্ক বিষয়ে জনসচেতনামূলক কার্যক্রমটি পরিচালনা করার জন্য কলেজ কর্তৃপক্ষ স্বাস্থ্য অধিদপ্তর ও প্ল্যাটফর্মকে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করে।

ওয়েব টিম

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

Next Post

ইস্ট ওয়েস্ট মেডিকেল কলেজে পালিত হল বিশ্ব জলাতঙ্ক দিবস

Sun Sep 30 , 2018
রোগতত্ত্ববিদগণ বলছেন বিশ্বায়নের যুগে রোগের ধরন পাল্টেছে আগে সংক্রামক ব্যাধি বেশি হতো, এখন অসংক্রামক ব্যাধি। র‍্যাবিস বা জলাতঙ্ক একটি সংক্রামক রোগ। এটি র‍্যাবিস জীবাণু দ্বারা আক্রান্ত কুকুর, শিয়াল, বানর বিড়াল এর কামড়ে মানুষে ছড়ায়। জলাতঙ্ক আক্রান্ত হয়ে ২০০৮ সালে মারা যায় ১৮০ জন এবং ২০১৭ তে ৬০ জন। পরিসংখ্যানও বলছে […]

সাম্প্রতিক পোষ্ট