চোখঃ অসাবধানতায় অন্ধত্ব

শৈশব মানেই খেলাধুলা আর দুষ্টুমি। বাচ্চারা আর কতটুকু বুঝে? তাদেরকে দূর্ঘটনা থেকে রক্ষা করা বড়দেরই দায়িত্ব। খেলাধুলার সময় নিজের এবং অন্যের নিরাপত্তা সম্পর্কে আপনার শিশুকে শিক্ষা দিন।শ্রেণিকক্ষে কলম ছোড়াছুড়ি খুব সাধারণ একটি ঘটনা। কিন্তু এটি যে কতটা ভয়াবহ রূপ নিতে পারে তা সকলের জানা উচিত এবং সতর্ক হওয়া উচিত।

 

বাচ্চাটি শ্রেণিকক্ষে কলম ছোড়াছুড়ি করছিল। হঠাৎ সেই কলম দিয়ে তার চোখে আঘাত লাগে।চোখ ছিদ্র হয়ে যায়। চোখের ভিতরটা ভরে যায় রক্তে।

 

এ ধরনের ইনজুরিতে চোখের ভিতরে ইনফেকশন হতে পারে।চোখ নষ্ট হয়ে যাওয়ার ঝুঁকি থাকে অনেক বেশি। সারাজীবনের জন্যে শিশুটি দৃষ্টিশক্তি হারাতে পারে।

তাই আসুন আমরা সবাই আমাদের বাচ্চাদেরকে কলম ছোড়াছুড়ি খেলতে নিষেধ করি। তাদের বুঝাই এর ক্ষতিকর দিকগুলো। এ ব্যাপারে প্রাইমারী স্কুলের সম্মানিত শিক্ষক-শিক্ষিকাদের প্রতি আমার বিনীত অনুরোধ রইল। আপনারা শিক্ষার্থীদের দিকে এ বিষয়ে নজর দিন।আগে থেকেই তাদের বোঝান যে এই খেলাটি কতটা ভয়াবহ আকার ধারণ করতে পারে।

প্রতিটি শিশুর শৈশব হোক নিরাপদ।

জনস্বার্থে – ডা. মো. মিজানুর রহমান
এমবিবিএস, এমএস(চক্ষু)
কনসালটেন্ট, চক্ষু।

Urby Saraf Anika

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

Next Post

প্রথম সন্তান জন্মদানের ২৬ দিন পর যমজ সন্তান জন্ম দিলেন যশোরের এক নারী

Tue Apr 2 , 2019
সম্প্রতি প্রথম সন্তান জন্ম দেয়ার ঠিক ২৬ দিন পরে যশোরে বসবাসরত আরিফা সুলতানা ইতি (২০) প্রসব করেছেন যমজ সন্তান। ২৫ ফেব্রুয়ারি খুলনায় নরমাল ডেলিভারির মাধ্যমে প্রথম ছেলে সন্তান প্রসব করেন আরিফা সুলতানা ইতি। ওই সন্তানকে নিয়ে তিনি বাড়ি চলে যান। ঠিক ২৬ দিনের মাথায় তিনি তলপেটে প্রচন্ড ব্যথা নিয়ে খুলনায় […]

সাম্প্রতিক পোষ্ট