জমে উঠেছে ১ম শহীদ তাজউদ্দীন আহমেদ মেডিকেল কলেজ( শতামেক) আন্তঃব্যাচ ফুটবল টুর্নামেন্ট’১৮..

Ta – 02 ( অদ্বিতীয়)
Ta-03 ( ত্রয়ী)
Ta-04 (চতুষ্ক)
Ta- 05 ( পূর্ণতা )

 

 

 

 

 

 

 

 

 

 

৪ পয়েন্ট নিয়ে ফাইনালের পথে সবচেয়ে এগিয়ে আছে  ব্যাচ পূর্ণতা(Ta-05)। ১ পয়েন্ট নিয়ে দৌড়ে সবথেকে পিছিয়ে টুর্নামেন্টে অংশগ্রহণকারী  ব্যাচ অদ্বিতীয়(Ta-02) । অংশগ্রহণকারী বাকী দুই ব্যাচ ত্রয়ী (Ta-03) এবং চতুষ্ক(Ta-04) সমপরিমাণ ৩ পয়েন্ট নিয়ে মাঝে আছে।
গত ২৪ জুলাই,২০১৮ হতে শুরু হওয়া টুর্নামেন্টটিতে অংশগ্রহণ করেছে মোট ৪ টি ব্যাচ। প্রত্যেক ব্যাচ প্রত্যেকের মুখোমুখি হবে একবার করে। পয়েন্ট তালিকায় শীর্ষ দুই দল মোকাবেলা করবে ফাইনালে।
এরই ধারাবাহিকতায় প্রথম দিনের খেলায় মুখোমুখি হয়েছিল অদ্বিতীয়, ত্রয়ী এবং চতুষ্ক, পূর্ণতা। দিনের ১ম খেলায় টানটান উত্তেজনায় ত্রয়ী অদ্বিতীয়কে ৩-২ গোলে হারায়। ১ম অর্ধে ২-০ গোলে পিছিয়ে গেলেও অদ্বিতীয় প্রথমার্ধ শেষ করে ২-১ এ। দ্বিতীয়ার্ধের প্রথমেই গোল শোধ করে সমতা আনে তারা। এরপর দুইদলই চালাতে থাকে মুহুর্মুহু আক্রমণ,কিন্তু গোলের দেখা পাচ্ছিল না কোন দলই। খেলার যখন আর ২ মিনিট বাকি, তখন অদ্বিতীয়র ডিফেন্সের ভুলে রবিনের গোলে এগিয়ে যায় ত্রয়ী এবং জয়ী দল হিসেবেই মাঠ ছাড়ে। অন্য গোল গুলো করেছে অদ্বিতীয়র মলয় চৌধুরী এবং এ আর নাহিদ। ত্রয়ীর পক্ষে আগের গোল দুটো করেছিল মাসুদ রানা এবং তৌহিদুল ইসলাম।
দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে চতুষ্ককে ৩-১ গোলে হারায় পূর্ণতা। প্রথমে গোল দিয়ে চতুষ্ক এগিয়ে গেলেও প্রথমার্ধের শেষে ফলাফল হয় চতুষ্ক ১- ২ পূর্ণতা। যা শেষ পর্যন্ত ৩-১ এ গিয়ে দাড়ায়। চতুষ্কর পক্ষে একমাত্র গোলদাতা আমিনুল ইসলাম এবং পূর্ণতার পক্ষে গোলদাতারা হচ্ছেন তুহিন আবদুল্লাহ,ফরিয়াদ উল্লাহ এবং সাকিব সুমন।
প্রথমদিনের খেলা শেষে টুর্নামেন্টের ভাগ্য অনেকটাই অনুমেয় মনে হচ্ছিল। অথচ ২৬ তারিখ দ্বিতীয় দিনের খেলা শেষে জমে উঠেছে সমীকরণ। প্রত্যেকটি দলেরই ফাইনালে ওঠার স্বপ্ন বেচে রয়েছে এখনো।
দ্বিতীয় দিনের প্রথম ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছিল ত্রয়ী এবং চতুষ্ক। ত্রয়ীর জন্য এ ম্যাচটি ছিল ফাইনালে ওঠার টিকেট, যেখানে চতুষ্কর জন্যে ছিল বাচামরার লড়াই। এ ম্যাচ হেরে গেলেই টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে পড়ত চতুষ্ক। যে বাচামরার লড়াই ভালোভাবেই লড়েছে তারা। ২-০ তে ম্যাচ জিতে এখন তাদের পয়েন্টও ৩। চতুষ্কর পক্ষে গোল দিয়েছেন আমিনুল ইসলাম এবং মাইদুল ইসলাম।
দ্বিতীয় ম্যাচেও সমীকরণ ছিল একই রকম। জিতলেই ফাইনাল নিশ্চিত হয়ে যেত পূর্ণতার। হারলে চতুষ্কর মতই টুর্নামেন্ট থেকে ছিটকে যেত অদ্বিতীয়। চতুষ্কর মত জয় নিয়ে মাঠ ছাড়তে না পারলেও অর্জন শূণ্য নয়। খেলার ফলাফল ছিল ১-১। এক পয়েন্ট নিয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হয়েছে অদ্বিতীয়কে। অদ্বিতীয়র পক্ষে গোল দিয়েছেন মাজহারুল ইসলাম এবং পূর্ণতার পক্ষে গোল দিয়েছেন তুহিন আবদুল্লাহ।
পরবর্তী অর্থাৎ খেলার তৃতীয় দিনই বলে দেবে কারা উঠতে যাচ্ছে ফাইনালে। সমীকরণ যাই হোক, সকলেই চেষ্টা করবে তাদের সেরা খেলার দেবার এবং ফাইনালে খেলার। যা থেকে সহজেই অনুমান করা যাচ্ছে তৃতীয় দিনের খেলা হবে জমজমাট এবং হাড্ডাহাড্ডি লড়াই এর।
এই টুর্নামেন্টের স্পন্সর হিসেবে আছে রেনাটা ফার্মাসিটিউক্যালস।

 

 

ফিচার রাইটারঃ জামিল সিদ্দিকী
শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ, গাজীপুর
তৃতীয় ব্যাচ, সেশনঃ২০১৫-১৬

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

Next Post

রিসার্চের হাতেখড়ি ও পিএইচডি এর পথে যাত্রা (পর্ব ২)

Sat Jul 28 , 2018
[১ম পর্ব পড়ুন এখানে – https://www.platform-med.org/রিসার্চের-হাতেখড়ি-ও-পিএ/amp/ ] ● বিদেশে মাস্টার্স: বিদেশে বিভিন্ন বায়োমেডিক্যাল সাব্জেক্টে মাস্টার্স করা যায়, যার বেশির ভাগই সেলফ ফান্ডেড। ইউরোপের বিভিন্ন দেশে ৬ লাখ থেকে ২০ লাখ পর্যন্ত টিউশন ফি দিয়ে মাস্টার্স করা যায়। জিআরই দিয়ে আমেরিকা ও কানাডায় মাস্টার্স করা সম্ভব। স্কলারশিপ মাস্টার্সের ক্ষেত্রে খুব কমই […]

সাম্প্রতিক পোষ্ট