কোভিড-১৯ প্রতিরোধে ১১ এপ্রিল পর্যন্ত গার্মেন্টস বন্ধ রাখার আহ্বান

৫ এপ্রিল, ২০২০: দেশের সব ধরনের পোশাক কারখানা আগামী ১১ এপ্রিল পর্যন্ত বন্ধ রাখতে মালিকদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন বিজিএমইএ ও বিকেএমইএ।

কোভিড১৯ এর সংক্রমণ প্রতিরোধে সারাদেশ যখন অবরুদ্ধ, তখন ৫ এপ্রিল থেকে পোশাক কারখানা খোলার কথা শুনে ঢাকায় আসতে শুরু করেন পোশাক শ্রমিকেরা। যান চলাচল বন্ধ থাকায় অনেকেই পায়ে হেঁটেই ঢাকার পথ ধরেন। বিষয়টি সোশ্যাল মিডিয়ায় সকলের নজরে আসলে এ নিয়ে সমালোচনার ঝড় ওঠে। এরকম সময়ে এত মানুষ হঠাৎ ঢাকায় চলে আসলে করোনা সংক্রমণের হার কী রকম ভাবে বৃদ্ধি পাবে তা নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেন বিশেষজ্ঞরা।

এমতাবস্থায় শনিবার রাতে তৈরি পোশাক রপ্তানিকারকদের সংগঠন বিজিএমইএ’র সভাপতি রুবানা হক এক অডিও বার্তায় বলেন, “সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনা করে আগামী ১১ এপ্রিল পর্যন্ত কারখানা বন্ধ রাখার জন্য সব কারখানা মালিক ভাই-বোনদের বিনীত অনুরোধ জানাচ্ছি। একই সাথে শ্রমিক ভাই-বোনদের এটাও আশ্বস্ত করতে চাই যে, তারা তাদের মার্চ মাসের বেতন পাবেন। এটা নিয়ে শঙ্কিত হওয়ার কোনো প্রয়োজন নেই। কর্মক্ষেত্রে অনুপস্থিত থাকার কারণে কোনো শ্রমিক যাতে চাকরিচ্যুত না হন সব পক্ষকে এই অনুরোধটুকু করছি।”

পরে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বিকেএমইএ সভাপতি এ কে এম সেলিম ওসমান আগামী ১১ এপ্রিল পর্যন্ত তাদের সংগঠনভুক্ত সব কারখানা বন্ধ রাখার সিদ্ধান্তের কথা জানান।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশে বিজিএমইএর অধীনে ৩২০০ এবং বিকেএমইএর অধীনে ২২০০ কারখানা চালু আছে বলে দুই সমিতির পক্ষ থেকে বলা হয়ে থাকে। এসব কারখানায় ৪০ লাখের মতো শ্রমিক কাজ করেন বলে মালিকরা দাবি করে আসছেন।

নিজস্ব প্রতিবেদক/ অভিষেক কর্মকার জয়

Platform

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

Next Post

১৪ এপ্রিল পর্যন্ত সাধারণ ছুটি ঘোষণা

Sun Apr 5 , 2020
৫ই এপ্রিল,রবিবার,২০২০ চলমান সাধারণ ছুটির সাথে সাপ্তাহিক ও নববর্ষের ছুটি মিলিয়ে আগামী ১৪ তারিখ পর্যন্ত ছুটি বাড়ানো হয়েছে।রবিবার জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের এক প্রজ্ঞাপন জারির মাধ্যমে এই ছুটির আদেশ জারি করা হয়।আজ রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে উপসচিব কাজী মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম প্রজ্ঞাপনটি জারি করেন। দেশব্যাপী করোনাভাইরাসের রোগ মোকাবেলা এবং এর ব্যাপক বিস্তার রোধকল্পে সতর্কতা […]

সাম্প্রতিক পোষ্ট