• নিউজ

October 30, 2014 9:09 pm

প্রকাশকঃ

লেখক: এস এম মাহফুজ
শিবগঞ্জ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ঘটনার বিস্তারিতঃ গতকাল ২৯অক্টোবর ২০১৪, চাঁপাইনবাবগঞ্জের  শিবগঞ্জে আইন শৃংখলারক্ষা বাহিনী, সীমান্তরক্ষী বাহিনী আর হরতাল সমর্থকদের সংঘর্ষকালে কিছু হরতাল সমর্থক ও একজন সীমান্তরক্ষী সদস্য আহত হয়।গুরুতর আহতদের বিস্তারিত জরুরি বিভাগে লিপিবদ্ধ করে মেডিকেল কলেজে রেফার করা হয়। অপরদিকে সীমান্তরক্ষী বাহিনীর আহত সদস্যের জন্যে বাসায় স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ডেকে পাঠানো হয়। ইভনিং ডিউটি একারণে একজন ডাক্তার কর্মরত ছিলেন আর বাসায় যেয়ে চিকিৎসা দেয়া সম্ভব নয়, তাই,একজন চিকিৎসা সহকারী ও সেবিকা পাঠানো হয়। সেসময় উপজেলার উর্ধতন চিকিৎসা কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন । সন্ধ্যার সময় এক দেড়শ আইনশৃংখলারক্ষী ও সীমান্তরক্ষী বাহিনীর সদস্যরা উপজেলার উচ্চপদস্থ প্রসাশনিক কর্মকর্তার উপস্থিতিতে হাসপাতালে চিকিৎসা সহকারী ও সেবিকাকে মারধর করে। উপজেলার উর্ধতন চিকিৎসা কর্মকর্তা এবং দায়িত্বরত মহিলা চিকিৎসা কর্মকর্তাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে, এমনকি শারিরীকভাবে আঘাত করতে উদ্দত হয় এবং শেষে আটক করে পুলিশ হেফাজতে নিয়ে যায়। পুলিশ মামলা না নিলেও রাত ১০ টা অবধি আটক রাখে। এই হল আমাদের দেশের ডাক্তার, যারা নাকি প্রথম শ্রেণীর অফিসার, তাদের অসহনীয় যন্ত্রণার চিত্র। একজন উর্ধতন চিকিৎসা কর্মকর্তাকে তার সমমর্যাদার একজন প্রশাসনিক কর্মকর্তা বা তার চেয়ে নিম্নপদস্থ অফিসার কোন সাহসে এত খারাপ আচরণ করে বা বিনা WARRANT এ আটক করে। এই ঘটনা শুধু ডাক্তারদের সাথেই এবং আমাদের দেশেই সম্ভব।

শেয়ার করুনঃ Facebook Google LinkedIn Print Email
পোষ্টট্যাগঃ bcs, protect doctor, UHFPO, upazilla health complex, উপজেলা, ডাক্তার, ডাক্তার হামলা, নার্স,

পাঠকদের মন্তব্যঃ ( 0)




Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

Advertisement
Advertisement
.