মেডিকেল অ্যান্ড ডেন্টাল স্টুডেন্টস এ্যাসোসিয়েশন অব ফরিদপুর এর আহবায়ক কমিটি গঠন

ফরিদপুর বাংলাদেশের একটি অন্যতম বড় জেলাশহর। সম্প্রতি বৃহত্তর ফরিদপুরকে বিভাগ ঘোষণা করা হয়েছে। ফরিদপুরের ৯টি থানা থেকে অসংখ্য শিক্ষার্থী বাংলাদেশের বিভিন্ন স্বনামধন্য সরকারি এবং বেসরকারি মেডিকেল এবং ডেন্টাল কলেজে পড়াশোনা করছে। তাদের একত্রিত করে যাত্রা শুরু করলো “মেডিকেল অ্যান্ড ডেন্টাল স্টুডেন্টস এ্যাসোসিয়েশন অব ফরিদপুর”।

গতকাল ২৮ জুন, ২০১৭ তারিখে অনুষ্ঠিত হয় এই অর্গানাইজেশনটির প্রথম মত বিনিময় সভা। ফরিদপুর শহরের ঝিলটুলিস্থ টেরাকোটা চায়নিজ রেস্টুরেন্টে অনুষ্ঠিত এ সভায় উপস্থিত ছিলেন ৭০ জনেরও অধিক সদস্য। এ সভায় সভাপতিত্ব করেন প্রতিষ্ঠাকালীন আহবায়ক সাতক্ষীরা মেডিকেল কলেজের ২০১১-১২ বর্ষের শিক্ষার্থী নজরুল ইসলাম। বক্তব্যে তিনি সবার একতাবদ্ধ হওয়ার উপর জোর দেন। সবার একতায় এ সংগঠনটি পারষ্পরিক সাহায্য সহযোগিতা ছাড়াও ফরিদপুরে বিভিন্ন ধরণের সামাজিক কর্মকান্ড পরিচালনা করবে বলে তিনি জানান।

সভায় আরো বক্তব্য রাখেন ডায়াবেটিক এ্যাসোসিয়েশন মেডিকেল কলেজ এর সুদীপ্ত চক্রবর্তী, ফাল্গুনী আলম, ডা. সিরাজুল ইসলাম মেডিকেল কলেজের উৎপল দত্ত, জেড এইচ শিকদার মেডিকেল কলেজের সামান্তা সাহা এবং আরো অনেকে।
বক্তব্যে বক্তারা জানান, সাম্প্রতিক ঘটনা বিবেচনা করলে দেখা যায়,ডাক্তারি পেশার জন্য একটা দুঃসময় চলছে। এই দুঃসময়কে প্রতিহত করার জন্য ডাক্তার সসমাজের একতাবদ্ধ হওয়া প্রয়োজন। এই উদ্দেশ্যেই এই মেডিকেল অ্যান্ড ডেন্টাল স্টুডেন্টস এ্যাসোসিয়েশন প্রতিষ্ঠার উদ্যোগ নেয়া এবং সফল হওয়ার পর এখন অপেক্ষা সামনের দিনগুলোতে সামনে এগিয়ে যাওয়ার।

এ উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়েছেন বিএমএ (বাংলাদেশ মেডিকেল এ্যাসোসিয়েশন) ফরিদপুর জেলা শাখার সভাপতি ডা. মোঃ আ.স.ম জাহাঙ্গীর চৌধুরী টিটো, সাধারণ সম্পাদক ডা. মোঃ মাহফুজুর রহমান বুলু, ফরিদপুর মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ ডা. মোঃ খবিরুল ইসলাম প্রমুখ ব্যক্তিবর্গ।

বিএমএ, ফরিদপুর জেলা শাখার সমর্থনে আহবায়ক নজরুল ইসলাম (এসএমসি) যুগ্ম আহবায়ক সুদীপ্ত চক্রবর্তী (ডিএএমসি), বন্ধু সুন্দর সাহা তনু (এফএমসি), এস. এম. আরাফাত (ডিএএমসি), উৎপল দত্ত (এসআইএমসি), হৃদয় রায় (সমেক-ডেন্টাল ইউনিট), মোঃ মাহ্ফুজুল হক (ডিএএমসি), সদস্য সচিব তানভীর আহমেদ মুগ্ধ (ডিএএমসি), সাধারণ সদস্য দীপ্ত সাহা রাজন (এফএমসি), মোঃ সাদমান সাকিব (ডিএমসি), ফাল্গুনী আলম (ডিএএমসি), অমিত কুমার বিশ্বাস (ডিএএমসি), সাদমান সৌমিক (পিএমসি), চিরঞ্জিৎ সাহা (ডিএএমসি) সহ মোট ৪১ সদস্যের আহবায়ক কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে। আসন্ন কোরবানির ঈদে অর্গানাইজেশনটির পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করা হবে।

প্রতিষ্ঠাকালীন আহবায়ক নজরুল ইসলাম বলেন, “খুব অল্প সময়ে অর্গানাইজেশনের প্রাথমিক কাঠামো দাঁড় করানো হয়েছে। এখন পর্যন্ত ফেসবুক গ্রুপে ২৭৪ জন স্টুডেন্টকে একত্র করা হলেও অনেকেই হয়তো জানেনা এখনো। কোরবানির ঈদের আগেই তাদের কাছে পৌঁছানো যাবে বলে আশা রাখি”। তিনি দেশের বিভিন্ন মেডিকেল এবং ডেন্টাল কলেজে অধ্যয়নরত ফরিদপুরের সমস্ত শিক্ষার্থীকে এগিয়ে আসার আহবান জানান।

যোগাযোগ করার জন্য রয়েছে এমডিএসএএফ এর ফেসবুক পেজ।

সংবাদদাতা: বনফুল রায়

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

Next Post

সম্ভাবনার সোনালী ট্রেন ও আমার যুবক বাংলাদেশ- পর্ব-১

Fri Jun 30 , 2017
    ছবির বামের অংশটি একটি বিখ্যাত ছবি, ১৯৬৪ সালে তোলা, “Early Morning Train in Japan”, ছবিটি ভোরের ট্রেনের। ছবিতে দেখা যাচ্ছে কর্মক্ষেত্রের উদ্দেশ্যে রওনা দেয়া জাপানী তরুনদের।     ভ্রমনের সময়টুকুতে ঘুমিয়ে নিচ্ছে। যদি বলি আজ যে উন্নত জাপানকে আমরা দেখছি তার উন্নতির জন্য অনেকাংশে দায়ী এরকমই কিছু চিত্র […]

সাম্প্রতিক পোষ্ট