• নিউজ

September 26, 2014 1:43 am

প্রকাশকঃ

মেডিকেল রিলেটেড অনেক গ্রুপ, অনেক পেজ কিন্তু অনলাইনে এবং অফলাইনে একত্রিত হয়ে নিজেদের দাবি, নিজেদের সুখ, দুঃখ গুলো শেয়ার করার মত কোন প্ল্যাটফর্ম ছিল না। সেই লক্ষ্যে ঠিক এই দিনে একটি ফেসবুক গ্রুপের জন্ম হয়। নাম দেয়া হয় “প্ল্যাটফর্ম!”

10616160_949814068366003_2780307959888553835_n

প্ল্যাটফর্ম গ্রুপের ইনফো থেকেই কথা গুলো উল্লেখ করছি-

প্ল্যাটফর্ম’ হচ্ছে মেডিক্যাল ও ডেন্টাল শিক্ষার্থী এবং পেশাজীবী’দের জন্য একটি সম্পূর্ণ অরাজনৈতিক গ্রুপ।

মেডিকেলের বন্ধুরা এখন আর আলোকবর্ষ দূরে নয় । গাইটনের কাউন্টার কারেন্ট মেকানিসমের ডেফিনেশন পড়তে পড়তে CMC’র একজনের ঝিমুনি উঠলে MMCর আরেকজন ততক্ষণে সেটার মনে রাখার মত প্যারোডি বানিয়ে ফেলেছে । ফরমালিনের ঝাঁজে,আইটেম-কার্ড-টার্ম-ওয়ার্ড ফাইনালের ফাঁক গলে আমাদের যত না বলা গল্পকথা, লাভস্টোরি কনফেশনস ওটি আর রোগীর বিছানার পাশে সমান্তরালে চলে । টার্মের পর আটো নিয়ে সমুদ্র দেখতে যাবো বা হাওড়ের বাতাস খাবো, কক্সবাজার মেডিকেলে কলেজ বা শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ, কিশোরগঞ্জের বন্ধুরা আছে না -দোস্তরা আসছি বলে SBMC’র কয়েকজন বেড়িয়ে পড়েছে । RMCতে পড়ি কিন্তু বাসা ঢাকায় , বন্ধু-আত্মীয়স্বজন পরিচিতদের জন্যে মাঝে মাঝেই রক্তের দরকার হয় । মেডিকেল স্টুডেন্ট হয়েও DMC , SSMC’র সন্ধানীর কেউ পরিচিত না থাকায় রক্ত ম্যানেজ করে দিতে পারিনি । ফাইনাল প্রফের পর সব অন্ধকার, হতাশার চাষ করা সিনিয়র ছাড়াও AMC USMLE অথবা ICDDR,B , JAMES P GRANT SCHOLARSHIP ক্যারিয়ার নিয়ে গাইড করবে এমন বন্ধুরাও থাকবে প্ল্যাটফর্মে । স্যারদের লেকচার সব এন্টেনার বাইরে দিয়ে যাচ্ছে- নিজেরাই বাংলা ইংলিশ গল্প জুড়ে দিয়ে POWER POINT এ লেকচার তৈরি করে একটা কালেকশন তৈরি করতে পারি বা লিজেন্ড লিজেন্ড স্যারদের লেকচার আপলোড দিতে পারি । প্রফ আসলে একই ভার্সিটির সাজেশন বা প্রি-প্রফের প্রশ্ন যোগাড়ের জন্য ও প্ল্যাটফর্ম চাই । এপ্রনে মেডিকেল কলেজের লোগো নিয়ে পপুলার মেডিকেল কলেজের ছাত্ররা ঘুরে বেড়ায় দেখে চোখ বাঁকায় প্রতিবেশী BMC বা ZHSWMCর মেয়েরা-প্ল্যাটফর্ম হোক তাদের পচানি দেবারও কমন প্লেস । অশিক্ষিত সাংবাদিক বলেন বা মানবাধিকার মিজান , দুই দিন পর পর ট্যাক্সের টাকার গরম দেখায় ওদের JELLY ছাড়া DRE করতে পারি না কারণ প্রফেসর স্যারদের থেকে শুরু করে ডাক্তার নিদেনপক্ষে মেডিকেল স্টুডেন্টরা এক নয় । মেডিকেল স্টুডেন্টদের কোন একক প্ল্যাটফর্ম নেই বলেই সড়ক দূর্ঘটনায় আহত রংপুর মেডিকেলের ছাত্রী হ্যাপী , মরণব্যাধীতে আক্রান্ত পাবনা মেডিকেলের ছাত্র হাসেম আলী, বগুড়ার শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজের তোবারক আলীর জন্য অর্থ সাহায্যের কথা আমরা অনেকে জানতেও পারি না । ফুটবল খেলা নিয়ে AFMC বা SHSMC’র সাথে DMC সাথে ডিএমসি-এন্টিডিএমসি বা গভর্মেন্ট প্রাইভেট মেডিকেল যতই দ্বন্দ্ব থাকুক AT THE END OF THE DAY আমরা সকলেই ভবিষ্যত ডাক্তার এবং এখন পর্যন্ত মেডিকেল স্টুডেন্ট পরিচয় ছাড়া , একই নিটার বা এন্ডেভার গাইড পড়া ছাড়া আমাদের মাঝে কমন কোন কিছু নেই । পলিটিক্যাল দলাদলি ও সকল ধরনের বিভাজনের উর্দ্ধে থেকে প্ল্যাটফর্ম হোক ভবিষ্যত ডাক্তারদের এক হবার জায়গা…

সেই শূন্য থেকে শুরু করে আজ প্রায় ১৮ হাজারেরও বেশি সদস্যের গ্রুপ আমাদের প্ল্যাটফর্ম। আমরা আজ এক বছর পার করেছি, অনেক অর্জন সাথে যুক্ত হয়েছে, অনেক সফলতা দেখেছি, আরও অনেক উদ্দেশ্য বাস্তবায়নের জন্য এখনও কাজ করছি।

শুভ হোক প্লাটফর্মের পথচলা।

শেয়ার করুনঃ Facebook Google LinkedIn Print Email
পোষ্টট্যাগঃ

পাঠকদের মন্তব্যঃ ( 0)




Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

Advertisement
Advertisement
.