একজন প্রথিতযশা হৃদরোগ বিশেষজ্ঞকে হারালো দেশ

বিএসএমএমইউ এর কার্ডিওলজি বিভাগের সাবেক চেয়ারম্যান, অধ্যাপক ও ডিভিশন প্রধান ডা. মো. আবু সিদ্দিক আর নেই। গত বৃহস্পতিবার (২২ জুন) সকাল ৭ টায় রাজধানীর এ্যাপোলো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান (ইন্নালিল্লাহি…….রাজেউন)। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৬২ বছর। তিনি স্ত্রী, এক ছেলে ও এক মেয়েসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।

বিশিষ্ট হৃদরোগ বিশেষজ্ঞ, মুক্তিযোদ্ধা, সাহিত্যিক অধ্যাপক আবু সিদ্দিক দীর্ঘদিন ধরে দূরারোগ্য ব্যাধি মাইলোডিসপ্লাস্টিক সিনড্রোমে ভুগছিলেন। সিঙ্গাপুরেও তিনি চিকিৎসা নিয়েছেন। মৃত্যুর দুইদিন আগে অসুস্থ অবস্থায় বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্বিবদ্যালয়ে ভর্তি করা হয়। সেখানে তাঁর অ্যাকিউট মায়লোব্লাস্টিক লিউকেমিযয়া ধরা পরে। এরপর তাঁকে অ্যাপোলো হাসপাতালে স্থানান্তর করে রক্তরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. আবু জাফর মোহাম্মদ সালেহ্ এর অধীনে ভর্তি করা হয়। রাতে হঠাৎ অবস্থার অবনতি হলে লাইফ সাপোর্ট দেয়া হয় এবং সকালেই তিনি মারা যান।

আবু সিদ্দিকের প্রথম জানাজা বৃহস্পতিবার বাদ জোহর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে অনুষ্ঠিত হয়। আজ শুক্রবার বাদ জুমায় আড়াইহাজার শহীদ মঞ্জু স্টেডিয়ামে দ্বিতীয় জানাজা হবে। এরপর তাঁকে দাফন করা হবে।
FB_IMG_1498205282393
অধ্যাপক ডা. মো. আবু সিদ্দিক নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজারের ফতেপুর ইউনিয়নের বগাদী বাইলাট গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি ১৯৭০ সালে আড়াইহাজার হাইস্কুল থেকে এসএসসি, ১৯৭২ সালে ঢাকা কলেজ থেকে এইচ এস সি, ১৯৭৯ সালে ঢাকা মেডিকেল কলেজ থেকে এমবিবিএস, ১৯৮৮ সালে ইউক্রেন পোস্ট গ্রাজুয়েট মেডিকেল ইনস্টিটিউট থেকে মেডিসিনে ফেলোশিপসহ কার্ডিওলজিতে পিএইচডি ডিগ্রি সম্পন্ন করেন।
একজন একাডেমিক চিকিৎসক ও গবেষক হিসেবে দেশি-বিদেশি জার্নালে প্রায় শতাধিক গবেষণাকর্ম ও প্রকাশনা রয়েছে তার। তিনি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় থেকে প্রকাশিত ইউনিভার্সিটি হার্ট জার্নালের চিফ এডিটর হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। এ ছাড়াও তার সম্পাদনায় ‘হার্ট গাইড বুক’ নামে একটি স্বাস্থ্য নির্দেশিকা প্রকাশিত হয়েছে। তিনি ছিলেন একজন সাহিত্যিক। সাহিত্য চিকিৎসা সেবা ও গবেষণায় বিশেষ অবদানের জন্য পালক অ্যাওয়ার্ড-১৯৯৬, চন্দ্রাবতী স্বর্ণপদক-২০০৫, অতীশ দীপঙ্কর স্বর্ণপদক-২০০৬, কবি আবু জাফর ওবায়দুল্লাহ সাহিত্য পুরস্কার-২০০৬, নওয়াব ফয়জুন্নেসা স্বর্ণপদক-২০০৮ ও নবাব সিরাজ-উদ-দৌলা স্বর্ণপদক-২০০৯ এবং মাইকেল মধুসূদন পুরস্কার-২০১২ লাভ করেন।

অধ্যাপক আবু সিদ্দিকের মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন, বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন, মহাসচিব ডা. এহতেশামুল হক দুলাল, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক কামরুল হাসান খান, স্বাধীনতা চিকিৎসক পরিষদের সভাপতি অধ্যাপক ইকবাল আর্সলান, মহাসচিব অধ্যাপক মোহাম্মদ আবদুল আজিজ, বিএসএমএমইউ-র হৃদরোগ বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক সজল ব্যানার্জি, ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের হৃদরোগ বিভাগের প্রধান অধ্যাপক ওয়াদুদ চৌধুরী, জাতীয় হৃদরোগ ইন্সটিটিউটের পরিচালক ও সোসাইটি অব কার্ডিওভাসকুলার ইন্টারভেনশনের সভাপতি অধ্যাপক আফজালুর রহমান প্রমূখ। শোকবার্তায় তারা বলেন, অমায়িক, মিতভাষী ও সজ্জন ব্যাক্তি ছিলেন অধ্যাপক ডা. মো. আবু সিদ্দিক।
প্ল্যাটফর্ম পরিবার এই প্রথিতযশা হৃদরোগ বিশেষজ্ঞের মৃত্যুতে গভীরভাবে শোকাহত।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload the CAPTCHA.

Next Post

Common Misconceptions Regarding MRCP (UK) In Bangladesh

Sat Jun 24 , 2017
Common Misconceptions Regarding MRCP (UK) In Bangladesh >1. MRCP (UK) is a diploma degree in Medicine like diploma in cardiology, diploma in dermatology. TRUTH is MRCP (UK) is a diploma in internal medicine. Here, diploma means certificate (please check English dictionary). A diploma is a certificate issued by an institute […]

সাম্প্রতিক পোষ্ট